বাংলাদেশ অনলাইন নিউজ পোর্টাল এসোসিয়েশন এ তালিকাভুক্ত আইডি নং – ৪২৯ ............................ দেশ ও জাতীর কল্যাণে সংবাদ ও সাংবাদিকতা!! আপনি কি সাংবাদিক হয়ে দেশ ও জাতীর কল্যাণে কাজ করতে চান তা হলে যোগাযোগ করুন ০১৭২৬৩০৪০৯২
প্রচ্ছদ

জামালপুরে ড্রেনের বর্জ্যরে দূর্গন্ধে অতিষ্ঠ শহরবাসী

জামালপুর শহরে বিভিন্ন এনজিওর সমন্বয়, রাজনৈতিকনেতা, সরকারী বড় বড় উর্ধ্বতন কর্মকতারা গ্রীন জামালপুর ক্লিন জামালপুর নামে র‌্যালী, লিফল্যাট বিলি করে প্রচারণা করলেও সেটা কি আসলে কতটুকু সফল হয়েছে? এটি সাধারণ মানুষের প্রশ্ন।

জামালপুর শহরের গেইটপাড় এলাকায় পৌর সভার ড্রেন পরিস্কার করে ময়লাগুলি না সড়ানো, ড্রেনের পঁচা ময়লা পানির কারণে দীর্ঘদিন যাবত সাধারণ মানুষের দুর্ভোগ। ড্রেনের বর্জ্যর দূগন্ধ ও রাস্তার উপর ময়লার স্তুপগুলো থাকায় সাধারণ মানুষের চলাচলও ব্যাপক ভাবে ব্যহত হচ্ছে। এ বিষয়ে আমাদের কাছে একাধিক অভিযোগ করেছেন সাধারণ ভুক্তভোগী মানুষ।

গেইটপাড় এলাকার ব্যবসায়ী শামীম হায়দার বলেন, ড্রেনগুলি পরিষ্কার না করা ও রাস্তার দুইপাশে কাদার স্তুপ থাকা, ড্রেনের পঁচাপানি আমাদের মাড়িয়ে আসাযাওয়া করতে হয়। এছাড়াও যদি পৌর কর্তৃপক্ষ ড্রেনগুলি পরিষ্কার করে তাহলে ড্রেনের ময়লাগুলি সড়িয়ে না নিয়ে রাস্তার উপর স্তুপ করে রাখায় ময়লার দুগন্ধে আমরা ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে থাকতে পারিনা। যা আমাদের নিত্যদিনের ভোগান্তিতে পরিণত হয়েছে। এ দিকে পৌর কর্তৃপক্ষের কোন নজর নেই বললেই চলে। জামালপুর শহরের গেইটপাড় ছাড়াও শহরের মালগুদাম রোড, মহিলা কলেজ সংলগ্ন এলাকাটিতেও একই অবস্থা বিরাজমান।

অটো চালক ফিরোজ মিয়া বলেন, ড্রেনগুলি পরিষ্কার না করায় ড্রেনের পচাপানি রাস্তার উপরে আসায় এবং ময়লাগুলি রাস্তার উপর স্তুপ করে রাখার কারণে দূর্গন্ধের জন্য আমাদের অটো চালানো খুবই কষ্ট হয়। যাত্রীরা এখানে গন্ধের জন্য নামতেও চায় না। নামলেও ড্রেনের পঁচাকাদা পায়ে মাড়াতে হয়।
জামালপুর পরিবেশ রক্ষা আন্দোলনের সভাপতি জাহাঙ্গীর সেলিম বলেন, শুধু গেইটপাড় এলাকাই নয় তমালতলা, কথাকলিমার্কেট, লম্বাগাছ এলাকা, জাহেদাসফির মহিলা কলেজের পার্শ্বেসহ শহরের বিভিন্ন এলাকায় ড্রেনের অপবিত্র পানি রাস্তায় প্রবেশ করায় মুসল্লিরা অপবিত্র হচ্ছে ও সাধারণ মানুষের চরম ভোগান্তি হচ্ছে। এছাড়াও ড্রেনগুলি পরিস্কার করে ময়লাগুলি রাস্তা থেকে না সরানোর কারণে দূগন্ধের জন্য শহরবাসী অতিষ্ঠ হচ্ছে। তাই আমি জামালপুর পরিবেশ রক্ষা আনন্দোলনের সভাপতি হয়ে বলছি, দ্রুত ড্রেনগুলি পরিস্কার ও ড্রেন পরিস্কারের ময়লাগুলি সড়ানোর জন্য পৌর কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ জানাচ্ছি।

পৌর মেয়র মির্জা সাখাওয়াতুল আলম মনি বলেন, জামালপুর শহরকে পরিষ্কার করার জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপ নিয়েছি। পর্যায় ক্রমে তা করা হবে।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*